Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কী সেবা কীভাবে পাবেন


সেবা/ধাপ সমূহঃ জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তর, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকরের স্থানীয় সরকার,পল্লী উন্নয়ন ও সমবামন্ত্রণালয়ের অধিনে একটি সেবামূলক প্রতিষ্ঠান। এই অধিদপ্তরের মাধ্যমে বাংলাদেশ সরকারের মাঠ পর্যায়ে জনগোষ্ঠির কাছে নিরাপদ সুপিয় পানি সরবরাহ করা, গ্রামীণ জনগোষ্ঠির জন্য স্যানিটারী ল্যাট্রিনের ব্যবস্থা করা,স্বাস্থ্যবিধী,ব্যক্তিগত স্বাস্থ্য পরির্চজা,খোলা পায়খানা অপসারন,পানি বাহিত রোগ সর্ম্পকে জনসাধারনকে সচেতন করা,বন্যার সময় জরুরীভাবে নিরাপদ পানি সরবরাহের ব্যবস্থা করা সহ আনুসাংগীক কাজ করে থাকে।

 

কি সেবা কিভাবে পাবেন

সেবার ধরন

সেবা

সেবা প্রদান/ প্রাপ্তির ক্ষেত্রে অসুবিধা সমুহ

 

নাগরিক পর্যায়

সরকারী পর্যায়

নিরাপদ পানির উৎস স্থাপন

সরকারী বরাদ্দ সাপেক্ষ্যে স্থান নির্বাচন কমিটির অনুমোদনক্রমে নিরাপদ পানির উৎস স্থাপনের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করা।

 

 

পানির গুনগতমান পরীক্ষা

খাবার পানির গুনগতমান পরীক্ষা, পরিবীক্ষন ও পর্যবেক্ষন (যেমন আর্সেনিক,ব্যাকটেরিয়া,আয়রন,ক্লোরাইড ইত্যাদি)

জনগনের মাঝে সচেতনতার অভাব।

জেলা / উপজেলা পর্যায়ে পানি পরীক্ষাগার  না থাকায় শুধুমাত্র ফিল্ড টেষ্ট কীট দ্বারা পানি পরীক্ষার ফলে সঠিক মান পাওয়া যায় না। ফিল্ড টেষ্ট কীটের স্বল্পতা রয়েছে।

স্যানিটেশন সামগ্রী বিনামূল্যে বিতরন

বরাদ্দ সাপেক্ষ্যে হতদরিদ্রদের মাঝে স্যানিটেশন সামগ্রী বিনামূল্যে বিতরন।

সচেতনতার অভাবে প্রাপ্ত রিং-স্লাব ফেলে রাখা।

সরকারী / বেসরকারী সংস্থা যে যার মত স্যানিটেশন সামগ্রী    বিতরন করার ফলে কেউ পাচ্ছে কেউ পাচ্ছে না। ফলে আশা অনুযায়ী ফল পাওয়া যাচ্ছে না।

নলকুপ মেরামত করণ

দক্ষ নলকুপ মেকানিক কর্তৃক সরকারী নলকুপ মেরামত করণ।

 

 

নলকুপের খুচরা যন্ত্রাংশ বিক্রয়

সরকার নির্ধারিত মূল্যে নলকুপের সকল খুচরা যন্ত্রাংশ বিক্রয় করা।

 

সঠিক সময়ে প্রয়োজনীয় খুচরা যন্ত্রাংশ বরাদ্দ পাওয়া যায় না।

স্যানিটেশন সামগ্রী বিক্রয়

সরকার নির্ধারিত মূল্যে স্যানিটশন সামগ্রী(যেমন রিং-স্লাব,) বিক্রয় করা।

 কম দামে মানসম্পন্নহীন সামগ্রী ক্রয় করার প্রবণতা।

 

উদ্বুদ্ধকরণ

নিরাপদ পানি ও স্বাস্থ্য সম্মত পায়খানার ব্যবহার ও এনভায়রনমেন্টাল স্যানিটেশন সংক্রান্ত স্বাস্থ্য বিধি পালন সম্পর্কে জনগনকে  উদ্বুদ্ধকরণ।

 

 

আপদকালীন সেবা

আপদকালীন (বন্যা,সাইক্লোন ইত্যাদি) সময়ে জরুরী ভিত্তিতে নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশনের ব্যবস্থা করা।

 

প্রয়োজনীয় সামগ্রী বরাদ্দ সল্পতা

প্রশিক্ষন

স্থানীয় সরকার,বেসরকারী উদ্যোক্তা,বেসরকারী সংস্থা কর্তৃক আয়োজিত প্রশিক্ষনে প্রশিক্ষক প্রদান ও সাধারন জনগনকে নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশন ব্যবস্থা উন্নয়নে কারিগরী পরামর্শ ও প্রশিক্ষন প্রদান।

 

 

কারিগরী সহায়তা

বাংলাদেশের পল্লী এলাকায় ইউনিয়ন পরিষদের সহায়তায় ও পৌর এলাকায় পৌরসভার সহিত নিরাপদ পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন কার্যক্রম গ্রহন ও বাস্তবায়ন। এছাড়াও পৌর এলাকায় পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন ব্যবস্থার অবকাঠামো নির্মান ও কারিগরী সহায়তা প্রদান। তাছাড়া পানি সরবরাহ ও স্যানিটশন ব্যবস্থার পরিচালনা ও রক্ষনাবেক্ষনে দক্ষতা উন্নয়নের লক্ষ্যে স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠান(ইউনিয়ন পরিষদ,পৌরসভা ও সিটি কর্পোরেশন) সমুহকে কারিগরী সহায়তা প্রদান।

পানি সরবরাহ ও স্যানিটেশন সংক্রান্ত  কারিগরী সহায়তা কোথায় পাওয়া যায় এ সংক্রান্ত তথ্য না জানা।

ডিপিএইচই নিরাপদ পানি ও স্যানিটেশন( পয়ঃ নিস্কাশন,নর্দমা ও কঠিন বর্জ্য আর্বজনা নিস্কাশন) ব্যবস্থা সম্প্রসারণ ও উন্নয়নে সরকার কর্তৃক ক্ষমতা প্রাপ্ত  Lead Agency হলেও অন্য দপ্তর এই সংস্থার সহিত যোগাযোগ না করে বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়নের ফলে বেশীরভাগ প্রকল্পের কারিগরী মান বজায় থাকে না এবং স্থাপনকৃত পানির উৎস ওস্যানিটেশন সংক্রান্ত স্থাপনার সঠিক পরিসংখ্যান  পাওয়া যায় না।

ডিজিটাল পানির উৎসের সনাক্তকরণ

প্রতিটি পানির উৎসের জিও কোড ভিত্তিক পরিচিত নম্বর প্রদান। যার মাধ্যমে পৃথিবীর যেকোন প্রান্ত থেকে ইন্টারনেটের মাধ্যমে উক্ত পানির উৎস সনাক্তকরন সম্ভব।

 

 

১. এলাকার সুপেয় পানি সরবরাহ করন

২. স্যানিটারী ল্যাট্রিন স্থাপনে জনগনকে উদ্ধুদ্ধ করন।

৩। সরকার নির্ধারিত মূল্য স্যানিটারী ল্যাট্রিন সরবরাহ করন ( বর্তমানে প্রতিসেট ৫০০/- )

৪. হত দরিদ্র লোকজনের মাঝে বিনামুল্য স্যানিটারী ল্যাট্রিন সেট বিতরণ ( বরাদ্ধ সাপেক্ষে)।

৫. নলকুপ রক্ষনাবেক্ষন কাজে জনগণকে সহায়তা প্রদান।